1. monirhossain12589@gmail.com : admin :
  2. nccnewsbd@gmail.com : ncc newsbd : ncc newsbd
ইউ‌নিয়ন ডি‌জিটাল সেন্টা‌রের জন্ম‌দি‌নে "উদ্যোক্তা হয়ে ওঠার গল্প" - এন‌সিসি নিউজ বিডি.কম
রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৫:৩৩ পূর্বাহ্ন
ব্রে‌কিং নিউজ
টঙ্গীবাড়ীতে সাংবাদিকদের উদ্যোগে পথচারি ও গাড়ী চালকদের মাঝে মাস্ক বিতরণ টঙ্গীবাড়ীতে “নিজের বলার মত একটা গল্প” ফাউন্ডেশনের মহাসম্মেলন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা টং‌গিবাড়ীতে মাস্ক না পড়ায় ভ্রামমান আদাল‌তে দুইজ‌নের দন্ড মুন্সীগঞ্জে হযরত মোহাম্মদ (সা:) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শণের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা সিরাজদিখানে ইউপি সদস্য মুরাদ হোসাইনের ব্যক্তিগত উদ্যোগে ফ্রী মেডিক্যাল ক্যাম্প তন্তর ইউনিয়ন বিকল্প যুবধারার আহবায়ক কমিটি গঠন সিরাজদিখানে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষন সিরাজদিখান ঔষধের দোকানে জরিমানা সিরাজদিখানে পানিত ডুবে যুবকের মৃত্যু বাজার মনিটরিং সিরাজদীখানে মাস্ক না পড়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১০ জনকে জরিমানা

ইউ‌নিয়ন ডি‌জিটাল সেন্টা‌রের জন্ম‌দি‌নে “উদ্যোক্তা হয়ে ওঠার গল্প”

প্র‌তি‌বেদনঃ
  • প্রকাশিত: বুধবার, ১১ নভেম্বর, ২০২০
  • ৪৬ বার পড়া হয়েছে

আমি রাকিবুল হাসান ৬ বছর দুবাই শহরে একটি কোম্পানিতে ক্লার্ক হিসেবে কাজ করেছি হঠাৎ দুবাই অর্থনৈতিক মন্দায় পড়লে ভিসা রিনিউ করা সম্ভব হয় নাই এমতাবস্থায় আমি দেশে ফিরে আসলাম এবং পুনরায় কোন দেশে যাওয়ার চিন্তা বাদ দিয়ে দেশে কোন একটা ব্যবসা করার চিন্তা-ভাবনা করতে থাকলাম কিন্তু আমার কাছে যে পরিমাণ টাকা ছিল হঠাৎ আমার বাবা অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে বাইপাস সার্জারি করাতে হয় তখন আমার আর ব্যবসা করার মত টাকা না থাকায় হতাশায় ভুগতে থাকি আমার যেহেতু বিভিন্ন কাজ জানা ছিল হঠাৎ একদিন আমি চিন্তা করলাম ল্যান্ড সার্ভে কাজ শুরু করব তার জন্য ছোট একটা অফিস করব চিন্তা করছিলাম তাও সম্ভব হচ্ছিল না হঠাৎ একদিন আমার বর্তমান সহ উদ্যোক্তা (সে প্রথমে কিছুদিন উদ্যোক্তা হিসেবে কাজ করে ভালো আয় হয় না বলে ইউডিসি থেকে বেরিয়ে যায়) সে আমাকে বলল ভাই আপনি কিছু কাজ জানেন আমি কিছু কাজ জানি চলেন আমরা দুজনে একসাথে কিছু করি ঠিক তখনই জানতে পারলাম ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোক্তা হিসেবে কাজ করার সুযোগ আছে তখন আর দেরি না করে তৎকালীন চেয়ারম্যান সাহেবের সাথে আলাপ-আলোচনা করি এবং তার সহযোগিতায় আমরা দুইজন ইউনিয়ন পরিষদে উদ্যোক্তা হিসেবে কাজ করা শুরু করি এবং খুব তাড়াতাড়ি চেয়ারম্যানসহ এলাকাবাসীর মন জয় করতে সক্ষম হয়। এই সময়ের মধ্যে আমার বাবা-মা আমাকে বিয়ে করানোর চিন্তা ভাবনা করে অনেক জায়গায় পাত্রী দেখে কিন্তু কে হই বিদেশ ফেরত বেকার বলে পাত্রী দিতে রাজি হয় না তবে তার জন্য বেশি দিন আমাকে দেরি করতে হয় নাই আমাদের চেয়ারম্যান সাহেব আমার কাজের প্রতি এতটাই খুশি ছিলেন যে হঠাৎ আমার শ্বশুর আমার সম্পর্কে খোঁজখবর নিতে গেলে চেয়ারম্যান সাহেব এমন ভাবে আমার প্রশংসা করেন আমার শশুর আর দেরি করেননি। আলহামদুলিল্লাহ আমি এখন সফল এবং স্বচ্ছল এবং এলাকাবাসীর কাছে প্রিয় ভালোবাসার মানুষ এটা আমার কাছে অনেক বড় পাওয়া যা বলে বোঝানোর মত ভাষা আমার জানা নাই। বিদেশ ফেরত বেকার ছেলেটি এখন পাকা বাড়িতে থাকে, মোটরসাইকেল নিয়ে ঘোরে, ভালো জামা কাপড় পড়ে অফিস করে, সুখী হতে আর কি চাই।

আমি কৃতজ্ঞতা জানাই সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ

টংগিবাড়ী উপজেলা ডিজিটাল সেন্টারে কম্পিউটার অফিস প্রোগ্রামে ভর্তি চলছে

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed By: Bongshai IT